রিজার্ভড বগি | সপ্তম বর্ষ | মে ২০২৩-এপ্রিল ২০২৪

চার নম্বর প্ল্যাটফর্ম থেকে প্রতি মাসে ছাড়া মেল ট্রেনের রিজার্ভড বগি বা মূল ভাবনা। সপ্তম বর্ষ, মে ২০২৩-এপ্রিল ২০২৪। এই বছর আমাদের রিজার্ভড বগি-তে এসেছে আক্রান্ত ডারউইন এবং বিবর্তনবাদ, আমাদের তৃতীয় লিঙ্গের সহনাগরিকেরা, মিলান কুন্দেরা, অনুবাদ সাহিত্য...

লিখেছেন অনুপ্রভা দাস মজুমদার, অনুরাধা কুন্ডা, অভিজিৎ মুখার্জি, অভিষেক ঝা, অরুণাভ সিংহ, অশোক মুখোপাধ্যায়, আশীষ লাহিড়ী, কল্পর্ষি বন্দ্যোপাধ্যায়, জয়দীপ জানা, জয়ন্ত দাস, জয়া চৌধুরী, জি এইচ হাবীব, তৃষ্ণা বসাক, দত্তাত্রেয় দত্ত, দেবজ্যোতি রায়, নবনীতা সেনগুপ্ত, পার্থজিৎ চন্দ, পার্থপ্রতিম মণ্ডল, মধুশ্রী বন্দ্যোপাধ্যায়, মহিউদ্দিন সাইফ, মুম রহমান, শুভদীপ বড়ুয়া, শুভ্র বন্দ্যোপাধ্যায়, শোভন মুখোপাধ্যায়, শৌর্য বন্দ্যোপাধ্যায়, সর্বজিৎ সরকার, সায়ন্তন দত্ত, সুব্রত রায়, সুমন কল্যাণ মৌলিক, সৌমিত দেব, স্বপন ভট্টাচার্য, স্বপন রায়

সাক্ষাৎকার নেওয়া হয়েছে ফিনিশ কবি ও অনুবাদক হান্নেলে পোহ্‌য়ানমিস-এর, সাক্ষাৎকার নিয়েছেন নিরুপম চক্রবর্তী

অনুবাদ করে প্রকাশ করা হয়েছে মিলান কুন্দেরা-র একটি নিবন্ধ, অনুবাদ করেছেন পার্থপ্রতিম মণ্ডল

 

সূচি

পশ্চিমবঙ্গীয় বাংলা সাহিত্য: ভিতর-বাহির-অন্তর

…ঊনবিংশ শতাব্দীর শেষার্ধ থেকে শুরু করে স্বাধীনতা-উত্তর ভারতবর্ষে এমনকি বর্তমান সময় পর্যন্ত এপারের বাংলাভাষা ও সাহিত্যের পরিসরকে এই কল্লোলিনী মহানগর যে একচ্ছত্রভাবে শাসন করে আসছে, একথা বললে অত্যুক্তি হয় না। ব্রিটিশ ভারতের রাজধানী ও বাণিজ্যকেন্দ্র, পূর্বভারতে ছাপাখানা প্রতিষ্ঠার প্রথম সুবিধাভোক্তা, এবং ভারতীয় রেনেসন্সের প্রকাশভূমি হিসেবে কলকাতার এই সৌভাগ্যযাপন নিতান্ত অলীক অনধিকারচর্চা ছিল না। কিন্তু অভিযোগ এই, সৌভাগ্যলক্ষ্মী বিদায় নেওয়ার পরেও কলকাতা তার সাংস্কৃতিক আধিপত্য বজায় রেখেছে, ছলেবলেকৌশলে, আক্ষরিক অর্থে দেহের সব রক্ত মুখে এসে জমা হয়েছে। এই প্রবণতা বাংলা সাহিত্যের পক্ষে মারাত্মক ও ক্ষতিকারক। ঠিক এই মুহূর্তে শারদসাহিত্যের বিস্ফোরণে ভদ্রবিত্ত বাঙালির সাংস্কৃতিক প্রাঙ্গণ যখন কলতানমুখর অথবা অতি-চিৎকৃত, চার নম্বর প্ল্যাটফর্ম-এর অক্টোবর সংখ্যায় বাংলা সাহিত্যের তথাকথিত কেন্দ্র ও প্রান্তের সমীকরণগুলি আমরা বুঝতে চেষ্টা করেছি, ‘পশ্চিমবঙ্গীয় বাংলা সাহিত্য: ভিতর-বাহির-অন্তর’ শীর্ষক মূল ভাবনার ছায়ায়।…

লেখার ভিতর বাহির — স্বপন রায়
কেন্দ্র টলে গেছে যদিও — দেবজ্যোতি রায়
বড় কাগজ ছোট কাগজ — অনুরাধা কুন্ডা
প্রান্তিকতা ও শহিদ-মনস্তত্ত্ব — পার্থজিৎ চন্দ
পশ্চিমবঙ্গের সাহিত্যের কলকাতায়ন: শিকড় ও ডালপালা — অভিষেক ঝা
সাহিত্যে এককেন্দ্রিকতা প্রসঙ্গে — মহিউদ্দিন সাইফ

সপ্তম বর্ষ, পঞ্চম যাত্রা, অক্টোবর, ২০২৩

 

অনুবাদের সমস্যা, অনুবাদকের সঙ্কট

…নবীন ও প্রবীণ অনুবাদকর্মীদের এক আশ্চর্য সম্মেলন আমাদের এই সংখ্যাটিতে— লিখেছেন দত্তাত্রেয় দত্ত, অভিজিৎ মুখার্জি, জি এইচ হাবীব, অরুণাভ সিনহা, তৃষ্ণা বসাক, শুভ্র বন্দ্যোপাধ্যায়, শুভদীপ বড়ুয়া, পার্থপ্রতিম মণ্ডল, জয়া চৌধুরী, নবনীতা সেনগুপ্ত এবং মুম রহমান। তাঁদের সকলকে ও প্রত্যেককে আমাদের আভূমিনত কৃতজ্ঞতা। পৃথক উল্লেখের দাবি রাখে অধুনা প্রাগ-নিবাসী কবি নিরুপম চক্রবর্তীর নেওয়া ফিনল্যান্ডের কবি হান্নেলে পোহ্‌ইয়ানমিসের একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ সাক্ষাৎকার। সে-দেশের এসপো শহরে বসে গত দু-দশকেরও বেশি সময় ধরে হান্নেলে নিরবচ্ছিন্নভাবে রবীন্দ্রনাথের কবিতা অনুবাদ ও বই আকারে প্রকাশ করে চলেছেন ফিনিশ ভাষায়। তাঁর এই নিবিষ্ট রবীন্দ্রচর্চা বিষয়ে আমরা এখনও অনবগতই থাকতাম, যদি নিরুপম চক্রবর্তী তাঁর অনুবাদকর্মের সঙ্গে অত্যন্ত যত্নে আমাদের পরিচয় ঘটিয়ে না-দিতেন। ধন্যবাদ প্রাপ্য সমসময়ের অন্যতম সাহিত্যিক ও অনুবাদক তৃষ্ণা বসাকেরও, যিনি নিজদায়িত্বে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ লেখা আমাদের জন্য সংগ্রহ করে দিয়েছেন। সঙ্গে রয়েছে মলয়ালি ভাষার লেখক এস হরিশ-এর উপন্যাস মিশা-র অনুবাদের প্রথম পর্ব, যা ইংরেজি থেকে বাংলায় অনুবাদ করেছেন ব্রতীন্দ্র ভট্টাচার্য। উপন্যাসটি এই সংখ্যা থেকে ধারাবাহিকভাবে প্রকাশিত হবে। রইল শীর্ষা ও শত্তীশ্বরনের করা তামিল কবি সুকীর্তরানির কবিতার অনুবাদ, মূল তামিল থেকে করা। সোহেল ইসলাম অনুবাদ করেছেন প্যালেস্তিনীয় কবি মোসাব আবু তোহা-র কবিতা; মহাশ্বেতা আচার্য অনুবাদ করেছেন স্পেনীয় কবি লিওন ফেলিপে-র কবিতা। গল্প বিভাগেও আমরা রেখেছি তিনটি অনূদিত গল্প। লায়লী দাসের মূল ওড়িয়া থেকে অনুবাদে বিভূতি পট্টনায়কের গল্প; বাসুদেব দাসের মূল অসমিয়া থেকে অনুবাদের মনোজ কুমার গোস্বামীর গল্প; এবং সৈকত ভট্টাচার্যের অনুবাদে ইরানি গল্পকার সামাদ বেহরাঙ্গির গল্প। এছাড়াও তৃষ্ণা বসাক অনুবাদ করেছেন মলায়ালি গল্পকার পি কে পারাক্কাদাভুর কয়েকটি অণুগল্প— সেগুলিও রইল আমাদের এই সংখ্যার অণুগল্পের কামরায়। সর্বশেষ যে বিষয়টি উল্লেখ করার, আজ থেকে ৬৬ বছর আগে ‘কবিতা’ পত্রিকায় (পঞ্চদশ বর্ষ, চতুর্থ সংখ্যা, আষাঢ় ১৩৫৭) প্রকাশিত বুদ্ধদেব বসুর একটি অত্যন্ত মূল্যবান রচনা ‘ইংরেজিতে রবীন্দ্রনাথ’ আমরা পুনঃপ্রকাশ করতে পেরেছি, যা নিঃসন্দেহে এ সংখ্যার উজ্জ্বলতম উদ্ধার।…

“রবীন্দ্রনাথের কবিতা পরিযায়ী পাখির মতো, অনুবাদে যা ভাষার সীমানা পেরিয়ে যায়” — হান্নেলে পোহ্‌য়ানমিস
অনুবাদানুবাদ — দত্তাত্রেয় দত্ত
অনুবাদে সমৃদ্ধি ও ক্ষতিসাধন — অভিজিৎ মুখার্জি
প্রসঙ্গ: বাংলা অনুবাদ — জি এইচ হাবীব
আমার অনুবাদ (না) শেখানো — অরুণাভ সিংহ
অনুবাদে মেয়েরা — তৃষ্ণা বসাক
অনুবাদের সমস্যা, বাংলা ভাষার, বাংলায় — শুভ্র বন্দ্যোপাধ্যায়
অনুবাদের অর্থনীতি, অনুবাদকের সঙ্কট — শুভদীপ বড়ুয়া
ভাষার বাঁধন, ভাষার মুক্তিও — পার্থপ্রতিম মণ্ডল
অনুবাদ করতে গিয়ে যা কিছু ভাবি — জয়া চৌধুরী
অনুবাদকের সমস্যা — নবনীতা সেনগুপ্ত
আমি কেন অনুবাদ করি, কীভাবে করি — মুম রহমান

সপ্তম বর্ষ, চতুর্থ যাত্রা, সেপ্টেম্বর, ২০২৩

 

অস্তিত্ব, অতিথি তুমি…

মিলান কুন্দেরার আখ্যানবিশ্ব

…কুন্দেরার প্রয়াণের পর, তাঁর সাহিত্য নিয়ে একটি সংখ্যার পরিকল্পনা করতে বসে তাঁর উপন্যাস, আখ্যান ও প্রবন্ধের ইতস্তত অপরিকল্পিত পুনঃপাঠ ও এই সংখ্যার সম্ভাব্য লেখকতালিকা নির্মাণ করতে গিয়ে বারংবার টের পেতে হয়েছে এই সত্য যে, সমকালীন বাঙালি তাঁকে নিয়ে সমাজমাধ্যমে যত চর্চা করেন, তার অতি ক্ষুদ্র ভগ্নাংশও তাঁকে তত পড়েন না। এ-কথা অবশ্য সুবিদিত যে, বাঙালি যত বলেন পড়েন তার ঢের কম— আরও অনেকানেক সাম্প্রতিক লেখকের রচনাপ্রসঙ্গেই বাঙালির এই শ্রমবিমুখতার কথা প্রাসঙ্গিক। তথাপি, আমাদের মনে হয়েছে, মৃত্যুর মধ্যে দিয়ে আমাদের এই এক মস্ত সুযোগ করে দিয়ে গেলেন তিনি। এমন এক সুযোগ, যখন কুন্দেরার লেখালেখির সঙ্গে বাঙালির অন্তত সামান্য পরিচয় ঘটাতে পারলেও তা হবে এক মস্ত সময়োপযোগী ব্যাপার। সেই ভাবনা থেকেই এই সংখ্যার পরিকল্পনা।…

পিছনে কোথাও — মিলান কুন্দেরা
মিলান কুন্দেরা: একটি উপন্যাসের সমাপ্তি — শুভদীপ বড়ুয়া
মিলান কুন্দেরার উপন্যাস: বিস্মরণের বিরুদ্ধে শেষ ব্যারিকেড — সর্বজিৎ সরকার
অস্তিত্ববাদ ও ঠাট্টা: মিলান কুন্দেরার সাহিত্যকর্ম — সায়ন্তন দত্ত
ঐতিহাসিক স্মৃতিবিলুপ্তির বিপদ এবং মিলান কুন্দেরার প্রাজ্ঞতা — কল্পর্ষি বন্দ্যোপাধ্যায়

সপ্তম বর্ষ, তৃতীয় যাত্রা, আগস্ট, ২০২৩

 

রামধনু

…সমাজের দমনমূলক সিস্টেমের শরিক কোনও-না-কোনওভাবে আমরাও— এই উপলব্ধি যে অস্বস্তির জন্ম দেয়, প্রাইড মান্থ আমাদের তারও মুখোমুখি দাঁড় করায়। প্রাইড মান্থ আমাদের আহ্বান জানায় নিজেদের উদাসীনতা, নীরবতা ভঙ্গ করে বেরিয়ে আসতে, নিজেদের সহনাগরিকদের প্রকৃত অর্থে সহ-নাগরিক হয়ে উঠতে। চার নম্বর প্ল্যাটফর্মের পক্ষ থেকে আমরা সেই নীরবতার খোলস ভেঙে বেরোতে চাইছি। যেতে চাইছি সংলাপে। যে-সংলাপ গুঁড়িয়ে দেবে সংস্কারের জগদ্দল পাথরকে, পূর্ণতা পাবে প্রতিটি ব্যক্তিমানব, বৈচিত্র্যে ভরে উঠবে মানবসমাজ।…

আমি নারী, জন্মেছিলাম এক পুরুষ-শরীর নিয়ে — অনুপ্রভা দাস মজুমদার
প্রসঙ্গ, প্রাইড মান্থ — জয়দীপ জানা
একমাত্রিকতা, সমপ্রেম এবং আদালতে জয়: অধিকার কোন পথে — শৌর্য বন্দ্যোপাধ্যায়
তৃতীয় লিঙ্গের মানুষদের জন্য এই পৃথিবীকে বাসযোগ্য করে তোলার দায় আমাদের প্রত্যেকের — শোভন মুখোপাধ্যায়
সহ্য করতে করতে একসময় গলা তুলতেই হয় — সৌমিত দেব

সপ্তম বর্ষ, দ্বিতীয় যাত্রা, জুন, ২০২৩

 

আক্রান্ত ডারউইন

ধর্মান্ধতার কবলে বিবর্তনবাদ

যদিও শিক্ষা দফতরের পক্ষ থেকে যুক্তি দেখানো হয়েছে, শিক্ষার্থীদের ওপর থেকে অতিরিক্ত পড়ার চাপ কমানোর তাগিদেই এই পদক্ষেপ। কিন্তু পড়ার চাপ কমানোর তাগিদে পাঠক্রম থেকে অন্যতম প্রধান বিষয়টিকেই বাদ দিয়ে দেওয়া আদৌ যুক্তিসঙ্গত নয়। দ্বিতীয়ত, ২০১৪ পরবর্তীকালে আমাদের দেশে যে শিক্ষাক্ষেত্রে যে ঢালাও গৈরিকীকরণ ও বিজ্ঞানকে জলাঞ্জলি দিয়ে লাগাতার অবিজ্ঞানের চর্চা শুরু হয়েছে, তাতে বিবর্তনবাদকে ছেঁটে ফেলার ঘটনাটিকে মোটেই এত নির্বিষ ও বিচ্ছিন্ন বলে মনে হচ্ছে না। বস্তুত, আমাদের দেশে সার্বিকভাবে যে প্রগতিশীল চিন্তাবিরোধী এক সরণ শুরু হয়েছে, বিবর্তনবাদের বিসর্জনকেও আমরা সেই প্রেক্ষিতেই দেখব। আর এই বাস্তব সঙ্কটকে পাঠকের সামনে সামগ্রিকতায় তুলে ধরার, তাঁকে সমস্ত জানানোর ও ক্রুদ্ধ করার তাগিদেই চার নম্বর প্ল্যাটফর্ম-এর মে মাসের প্রচ্ছদ-ভাবনার নির্বাচন। আক্রান্ত ডারউইন— ধর্মান্ধতার কবলে বিবর্তনবাদ।…

আমেরিকায় ধর্ম-বিজ্ঞান সংঘাত ও বিবর্তনতত্ত্ব — আশীষ লাহিড়ী
ডারউইনের বিবর্তনতত্ত্ব মৌলবাদীদের চক্ষুশূল কেন? — অশোক মুখোপাধ্যায়
বিবর্তন-বিরোধী সাম্প্রতিক বিতর্ক এবং আমাদের ইতিহাস — মধুশ্রী বন্দ্যোপাধ্যায়
নির্বাসনে ডারউইন — স্বপন ভট্টাচার্য
এবার বাদ ডারউইন, সিলেবাসে সংঘের ছায়া দীর্ঘতর হচ্ছে — সুমন কল্যাণ মৌলিক
স্কুলশিক্ষায় বিবর্তন বাদ: বিবর্তন নিয়ে কিছু ভুল ধারণা — জয়ন্ত দাস
ডারউইনবাদ এবং হিন্দুত্বের বিবর্তন — সুব্রত রায়

সপ্তম বর্ষ, প্রথম যাত্রা, মে, ২০২৩

 

 

 

 

Terms and Conditions Privacy Policy Contact Us Cancellation and refund Shipping and delivery
%d bloggers like this: